,

যৌন উত্তেজক ওষুধ খেয়ে মৃত্যু!

ডেইলি মেইলঃ বান্ধবীকে খুশি করতে যৌন উত্তেজক ওষুধ সেবন করেছিলেন। কিন্তু ওষুধ খাওয়ার পর ‘টানা লিঙ্গোত্থান এবং বীর্যপাত না হওয়ার চাপ’ সইতে না পেরে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়লেন ৩০ বছর বয়সী এক নাইজেরিয়ান! পরে বান্ধবীকে নিয়ে উঠা হোটেল থেকে স্যামসন নামে ওই ব্যক্তিকে মৃত অবস্থায় উদ্ধার করে পুলিশ।

নাইজেরিয়ান গণমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদনগুলো মতে, বান্ধবীর সঙ্গে দীর্ঘ সময় ধরে সঙ্গম করার জন্য তিন সন্তানের বাবা স্যামসন ম্যানপাওয়ার নামের একটি ওষুধ সেবন করেছিলেন। ওষুধটি ভায়াগ্রার মতোই প্রভাব ফেলে। কিন্তু সঙ্গম করার পরও তিনি বীর্যপাত ঘটাতে ও লিঙ্গোত্থান থামাতে পারছিলেন না। আর এই টানা লিঙ্গোত্থানের চাপ সামলাতে না পেরেই তার মৃত্যু হয়।

এর আগে, কয়েক মাস ধরে স্যামসন তার ওই বান্ধবীকে বিছানায় নেওয়ার জন্য পটানোর চেষ্টা করছিলেন। ঘটনার দিন ওই বান্ধবীকে হোটেল কক্ষে নিয়ে যাওয়ার আগে তারা দুজন একটি বিয়ার পার্লারে বসে আড্ডা দিচ্ছিলেন। সে সময় স্যামসন যৌন উত্তেজক ওষুধ খেয়ে বান্ধবীকে সন্তুষ্ট করার পরিকল্পনা বিষয়ে গর্ব করছিলেন।

ওই বান্ধবীর সঙ্গে হোটেল কক্ষে যাওয়ার আগে স্যামসন প্রচুর মদও পান করেছিলেন। যদিও তিনি মদপানে অভ্যস্ত ছিলেন না। স্যামসনের মৃত্যুর পর তার বান্ধবী হোটেল কক্ষ ছেড়ে পালিয়ে যায়।

Facebooktwitterlinkedinyoutube
Facebooktwitterredditpinterestlinkedin


     More News Of This Category