,

SONY DSC

আমলায় বিজয় মেলার শুভ উদ্বোধন

স্বাধীনতার উপর নতুন জ্ঞান অর্জন করা উচিত: ড. এম আব্দুস সোবহান

ত্রিশ লক্ষ প্রাণের বিনিময়ে লাল সবুজের পতাকা পেয়েছি : কামারুল আরেফিন

আর এ নান্ন/হোসাইন মোহাম্মদ সাগর/জাহিদ হাসানঃ স্বাধীণতার মাসে আমাদের কিছু পরিমাণ হলেও স্বাধীনতার উপর নতুন জ্ঞান অর্জন করা উচিত। আমাদের সমাজের সেইসব বাঙালীদের খুজে বের করা উচিত যারা আড়ালে থেকেই সমাজের উন্নয়নে বৃহৎ ভূমিকা পালন করে যাচ্ছেন। এছাড়া স্কুল, কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয়ে বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধ এবং বাংলাদেশের অভ্যুদয়ের ইতিহাস আরো বেশি করে শিক্ষার্থীদের পড়ানো উচিত বলে জানালেন প্রাইম ইউনিভার্সিটির উপাচার্য প্রফেসর ড. এম আব্দুস সোবহান।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখছেন প্রফেসর ড. আব্দুস সোবহান (ছবি: হোসাইন মোহাম্মদ সাগর)

শুক্রবার সন্ধ্যা ৭টায় কুষ্টিয়ার মিরপুর উপজেলার বিজয় দিবস উপলক্ষে আমলা সদরপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয় খেলার মাঠে বিজয় মেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
আমলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আনোয়ারুল ইসলাম মালিথার সভাপতিত্বে বিজয় মেলার  শুভ উদ্বোধন করেন মিরপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কামারুল আরেফিন।

মেলায় উদ্বোধনী বক্তব্য রাখছেন কামারুল আরেফিন (ছবি: গোলাম কিবরিয়া মাসুম)

তিনি বলেন, স্বাধীনতা অর্জনের চেয়ে রক্ষা করা কঠিন। আমরা ত্রিশ লক্ষ প্রাণের বিনিময়ে যে রক্তিম লাল সবুজের পতাকা পেয়েছি তার যথাযথ মর্যদা দিতে হবে। যারা আমাদের এ স্বাধীনতা এনে দিয়েছে তাদের সাথে আমাদের সোহার্দপূর্ণ আচরণ করতে হবে। তাহলেই মুক্তিযোদ্ধাদের কাঙ্খিত স্বপ্ন পূরণ হবে। তিনি আরো বলেন, মহান মুক্তিযদ্ধের গৌরবময় সঠিক ইতিহাস নতুন প্রজন্মকে জানাতে এ বিজয় মেলার আয়োজন করা হয়েছে।
অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ ব্যাংকের সহকারী পরিচালক ও আমলার কৃতি সন্তান নাজমুল হুদা। এসময় তার বই ‘ক্যারিয়ার ক্যারিশমা’ এর মোড়ক উন্মোচন করা হয়।
এসময় আরো বক্তব্য রাখেন বিশিষ্ট সমাজসেবক আনারুল হক, সদরপুর ইউনিয়ন আওয়ামী যুবলীগের সভাপতি আশরাফুল ইসলাম, বাংলাদেশ সুইমিং ফেডারেশনের যুগ্ম-সাধারন সম্পাদক আমিরুল ইসলাম প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে অতিথিদের শুভেচ্ছা দিচ্ছেন। (ছবি: আর এ নান্নু)

অনুষ্ঠানটি সার্বিকভাবে পরিচালনা করেন সদরপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের যুগ্ম-সাধারন সম্পাদক রুহুল আমীন। উদ্বোধন অনুষ্ঠান শেষে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

Facebooktwitterlinkedinyoutube
Facebooktwitterredditpinterestlinkedin


     More News Of This Category